President

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপিতে ভাঙনের জন্য আওয়ামী লীগের প্রয়োজন নেই। এজন্য দলটির জ্যেষ্ঠ ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানই যথেষ্ট।

মঙ্গলবার রাজধানীর র‌্যাডিসন হোটেলের সামনে বিআরটিসির ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিদর্শনে গিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপি একটা বড় দল। আওয়ামী লীগ চায় না, ভাঙুক। এই চেষ্টাও আওয়ামী লীগ করবে না। বিএনপি ভাঙার জন্য বিএনপি নিজেরাই দায়ী হবে। বিএনপির সংকট আওয়ামী লীগ ঘনীভূত করবে না। আওয়ামী লীগ এখানে ফ্যাক্ট নয়। বিএনপির সাংগঠনিক ও অভ্যন্তরীণ সংকট ঘনীভূত করার জন্য জন্য তারেক রহমানই যথেষ্ট।

তিনি বলেন, 'বিএনপি নির্বাচন থেকে সরে গেলে আওয়ামী লীগ খুব খুশি হবে, আওয়ামী লীগের জন্য উৎসাহব্যঞ্জক কিছু হবে— এটা ভাবা ঠিক নয়। আওয়ামী লীগ একটা প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক নির্বাচন চায়। সেজন্য বিএনপির থাকা দরকার। প্রতিদ্বন্দ্বিতার মজা না থাকলে নির্বাচনে মজা নেই। আওয়ামী লীগ চায় বিএনপি নির্বাচনে আসুক এবং নির্বাচনটা প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক হোক।'

'নেত্রীকে ছাড়া নির্বাচনে যাবে না বিএনপি'— দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, 'খালেদা জিয়ার মুক্ত হওয়ার বিষয়টি এখন সম্পূর্ণরূপে আদালতের ব্যাপার। আদালতের আদেশে তিনি দণ্ডিত হয়েছেন, জেলে গিয়েছেন। এখন আপিলের বিচারে তাকে মুক্তি দেওয়া যায় কি-না সেটা আদালত বিবেচনা করতে পারেন। এখানে সরকার কোনো হস্তক্ষেপ করেনি, ভবিষ্যতেও করবে না।'

ওবায়দুল কাদের বলেন, 'আন্দোলনের হাঁক-ডাক বিএনপি নেতারা যেভাবে দেন, সেটাতে জনগণ সাড়া না দিলে তো গণআন্দোলন হবে না। নয় বছর তারা বারবার ডাক দিলেও জনগণ সাড়া দেয়নি। যে আন্দোলনে তারা নিজেরাই অংশ নেন না সেখানে জনগণ কি করে আসবে? বিএনপির আমলে আওয়ামী লীগও আন্দোলন করেছে। তখন দলের নেতারা মাঠে ছিলেন। এখন সম্পূর্ণ ভিন্ন চিত্র। শেখ হাসিনার উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে খুশি মানুষকে নিজের পক্ষে মাঠে নামানোর জন্য বিএনপি এমন কোনো কাজ করেনি।'

তিনি বলেন, 'তারা ভেবেছিলেন খালেদা জিয়া কারাগারে গেলে লাখ লাখ মানুষ রাস্তায় নেমে আসবেন। সারাদেশের মানুষ নেমে আসবেন। জনগণ কী খালেদা জিয়ার জন্য রাস্তায় নেমেছেন?'

ওবায়দুল কাদেরের সঙ্গে এ সময় সেতু মন্ত্রণালয় ও বিআরটিসি'র ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা ছিলেন।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/ এইচ কে/এস আর

১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ২২:২১ পি.এম