President

যুগ পরিবর্তন হলেও কিছু কিছু ক্ষেত্রে মানুষের ধ্যান-জ্ঞানের কোনো পরিবর্তন হয়নি। একটি স্থুলদেহী ছেলে বা মেয়ে সমাজে, পরিবারে এমনকী বন্ধু মহলে নিজেকে নিয়ে কতটা হীনমন্যতায় ভোগেন তা শুধু সে নিজেই জানেন। প্রতিনিয়ত রাস্তা-ঘাটে, যানবাহনে, পার্কে, অফিসে এমনকী নিজ বাসাতেই মোটা হওয়ার জন্য নানা কটুকথা শুনতে হয় তাদের। এরকমই একটি গল্প নিয়ে নির্মাণ হয়েছে স্বল্পদৈর্ঘ চলচ্চিত্র ‘মোটা মুটি’। রণজিৎ সরকারের গল্পে চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করেছেন এসডি প্রিন্স। এতে অভিনয় করেছেন মেহেদী সোহেল।

অনেকদিন ধরে মঞ্চে কাজ করলেও এই চলচ্চিত্রের মাধ্যমে প্রথমবারের মত ক্যামেরার সামনে কাজ করলেন তিনি। এ প্রসঙ্গে মেহেদী সোহেল বলেন, ‘অভিনয়ের প্রতি ভালোবাসা থেকেই মঞ্চে কাজ শুরু করি। অনেকদিন ধরে ‘সময়’ নাট্যদলে কাজ করছি। চেষ্টা করছি অভিনয়টা শেখার। পরিচালক প্রিন্স ভাই আমার খুব কাছের মানুষ। তার প্রস্তাব পেয়ে গল্পটা শুনি। গল্পটাতে আসলেই আমাদের সমাজের এক শ্রেণীর মানুষের বাস্তবতা তুলে ধরা হয়েছে। যা আমার হৃদয় ছুয়ে যায়। তাই তার প্রস্তাবে রাজি হয়ে যাই। আশা করছি চলচ্চিত্রটি সকল শ্রেণীর দর্শকের কাছে ভালো লাগবে।’

‘মোটা মুটি’ প্রসঙ্গে নির্মাতা এসডি প্রিন্স বলেন, ‘গল্পটি আমার খুবই পছন্দ হয়। তাই নির্মাণের লোভ সামলাতে পারিনি। দুজন ছাড়া অন্য অভিনেতা-অভিনেত্রীরা কোনোদিন ক্যামেরার সামনে দাঁড়ায়নি। তাই কিছুটা ত্রুটি থেকে গেছে।’ চলচ্চিত্রটিতে মেহেদী সোহেল ছাড়া আরও অভিনয় করেছেন নূর-ই-জান্নাত, তারিফ কাজী এবং কণিকা মুক্তা। অতিথি শিল্পী হিসেবে ছিলেন এসকে যুবরাজ এবং কৃষ্ণ কুমার। চলচ্চিত্রটি সম্প্রতি আই মিডিয়ার অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেলে মুক্তি দেওয়া হয়েছে।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/ এইচ কে/এস আর

১০ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ০১:০৯ এ.ম