President

দুর্নীতি মামলা কারাগারে যাওয়া বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মেডিকেল অ্যাসিস্ট্যান্ট হিসেবে গৃহকর্মী ফাতেমাকে রাখার অনুমতি দিয়েছে কারা কর্তৃপক্ষ। খালেদার অসুস্থতাজনিত কারণে কারাগারে এই অ্যাসিস্ট্যান্ট রাখার জন্য আবেদন করেন তার আইনজীবীরা।

বিএনপির মিডিয়া উইংয়ের কর্মকর্তা শায়রুল কবির খান জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার রাত সোয়া ৮টার দিকে কারা কর্তৃপক্ষের অনুমতি দিয়েছে।

দুপুরে বকশীবাজারের অস্থায়ী বিশেষ আদালতে খালেদা ও তার ছেলে তারেক রহমানসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে কারাদণ্ডাদেশ দেন বিচারক। জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের অর্থ আত্মসাতে দুদকের এই মামলায় খালেদার বিরুদ্ধে ঘোষিত হয়েছে পাঁচ বছরের কারাদণ্ড। আর তারেক ও অন্যদের বিরুদ্ধে ঘোষিত হয়েছে ১০ বছর করে কারাদণ্ড।

রায় ঘোষণার পরই সাদা রঙের গাড়িতে খালেদা জিয়াকে নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।

তখন খালেদার আইনজীবী ও দলটির সহ-আইন বিষয়ক সম্পাদক জয়নুল আবেদীন মেজবাহ রায় ঘোষণার পর খালেদা জিয়া অসুস্থ হয়ে পড়েন। আগে থেকেই অসুস্থ ছিলেন তিনি। অন্যের সহায়তা ছাড়া হাঁটতেও পারেন না। তাই কারাগারে তার মেডিকেল অ্যাসিসট্যান্ট চেয়ে আবেদন করা হয়েছে।

অবশ্য খালেদাকে কারাগারে নেওয়ার সময় ফাতেমাকেও তার গাড়িতে উঠতে দেখা যায়। তবে কারাগারে খালেদা জিয়ার সঙ্গে তাকে ঢুকতে দেওয়া হয়েছে কি-না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

এর আগে কখনও ফাতেমাকে আদালতে দেখা যায়নি। রায়ে নেতিবাচক কিছু আশঙ্কা করেই তাকে বৃহস্পতিবার খালেদার সঙ্গে করে আনা হয়।সূত্র: বাংলানিউজ

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/ এইচ কে/এস আর

০৯ ফেব্রুয়ারী, ২০১৮ ০১:২০ এ.ম