President

যতক্ষণ উপনির্বাচন স্থগিতের সিদ্ধান্ত বহাল থাকবে ততক্ষণ আমাদের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে হবে। এর বাইরে কোনো কিছু করা হাইকোর্টের আইনে আদালত অবমাননার পর্যায়ে পড়বে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। আজ বুধবার দুপুরে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলের পক্ষ থেকে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। ডিএনসিসি ও ডিএসসিসির বর্ধিত ৩৬ ওয়ার্ডের নির্বাচনের কাউন্সিলরদের নাম ঘোষণা করতে এ সংবাদ সম্মেলন করা হয়।

এসময় ডিএনসিসি মেয়র পদে উপনির্বাচনে আদালতের সিদ্ধান্ত নিয়ে ওবায়দুল কাদেরের কাছে জানতে চাওয়া হয়, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) উপনির্বাচন স্থগিতের বিষয়ে সরকারের কোনও যোগসাজশ আছে কিনা? জবাবে তিনি বলেন, যোগসাজশ কথাটি ভালো না। আওয়ামী লীগ নোংরা রাজনীতি করে না। তিনি বলেন, সব কিছুতে সরকারের যোগসাজশ আবিষ্কার করেন কেন? আমরা তো আমাদের কাউন্সিলর প্রার্থীও চূড়ান্ত করেছি। যা অন্য কোনও দল করতে পারে নাই। যেহেতু আদালত উপনির্বাচন স্থগিত করেছেন, তাই কিছু বলতে পারি না।

তিনি আরো বলেন, হাইকোর্ট এ নির্বাচন তিন মাসের জন্য স্থগিত করেছেন। হাইকোর্টের এ সিদ্ধান্ত যতক্ষণ বহাল থাকবে ততক্ষণ কাউন্সিলরের তালিকা প্রকাশ করা হাইকোর্টের আদেশ অমান্য করা হবে। তাই আমরা কাউন্সিলরদের নাম এ মুহূর্তে ঘোষণা করতে পারছি না। যতক্ষণ হাইকোর্টের সিদ্ধান্ত বহাল আছে ততক্ষণ আমাদের এ সিদ্ধান্ত মেনে নিতে হবে। এর বাইরে কিছু করা হাইকোর্টের আদেশ অমান্য করা হবে। যদি হাইকোর্টের সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হয়, তখন আমরা তালিকা প্রকাশ করবো। তিন মাস পর মেয়র পদে প্রার্থীতা পরিবর্তন হবে কি না-এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এটা সময় বলে দেবে।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন, দফতর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, বন ও পরিবেশ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক শামসুন্নাহার চাঁপা, কার্যনির্বাহী সদস্য এসএম কামাল হোসেন, নগর দক্ষিণের সভাপতি আবুল হাসনাত, সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, নগর উত্তরের সাধারণ সম্পাদক সাদেক খান প্রমুখ।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/ এইচ কে/এস আর

১৭ জানুয়ারী, ২০১৮ ১৪:৩৫ পি.এম