President

প্রায় একশত বছর আগে ভারতের মাওলানা মুহাম্মদ ইলিয়াস কান্ধলভী (রহ.) দিল্লিতে তাবলিগ জামাতের সূচনা করার পর থেকে মুলত: উর্দূতেই ইজতেমায় বয়ান ও মোনাজাত হয়ে আসছে। সেই অচলায়তন ভাঙছে এবার। ঢাকায় ৫২ বছরের তাবলিগ জামাতের বিশ্ব ইজতেমায় এবারই প্রথম আখেরি মোনাজাত হবে বাংলায়। হেদায়াতি বয়ানও হবে বাংলায়। পরিচালনা করবেন বাংলাদেশি একজন আলেম। মোনাজাতের আগে হেদায়াতি বয়ানও হবে বাংলায়।

বিশ্ব ইজতেমার মুরুব্বি মো. গিয়াস উদ্দিন জানান, শুক্রবার রাতে তাবলিগ জামাতের মুরব্বিদের এক বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে এবার আখেরি মোনাজাত পরিচালনা করবেন কাকরাইল মসজিদের শুরা সদস্য মাওলানা হাফেজ মোহাম্মদ যোবায়ের। তিনি দীর্ঘদিন ধরে তাবলিগ জামাতের সঙ্গে সম্পৃক্ত। তিনি লালবাগ মাদ্রাসায় পড়াশোনা করেছেন। কাকরাইল মসজিদ সংলগ্ন মাদ্রাসার পরিচালক তিনি।

তাবলিগ জামায়াতের বিভক্ত দুই গ্রুপের একটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন মোহাম্দ যোবায়ের। অপর গ্রুপের নেতৃত্বে আছেন প্রকৌশলী ওয়াসিফুল। কাকরাইল তাবলিগ মসজিদ এখন তার নিয়ন্ত্রণে।তিনিই মাওলানা সাদকে বাংলাদেশে আনার ক্ষেত্রে মূখ্য ভুমিকা রাখেন।

এদিকে আখেরি মোনাজাতের আগে হেদায়াতি বয়ান করবেন বাংলাদেশের মাওলানা আব্দুল মতিন। রবিবার শেষ হচ্ছে বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। বেলা ১১টার দিকে আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। চার দিন বিরতির পর আগামী শুক্রবার থেকে শুরু হবে বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। এবার অনুষ্ঠিত হচ্ছে ৫৩তম বিশ্ব ইজতেমা। ১৯৬৫ সাল থেকে তাবলিগ জামাতের বিশ্ব ইজতেমা বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/ এইচ কে/এস আর

১৪ জানুয়ারী, ২০১৮ ০১:৪৮ এ.ম