President

আপনার পোশাকের রং বলে দিতে পারে আপনি কতোটা কেতাদুরস্ত । আপনি হয়তো কোথাও ঘুরতে গেলে সুন্দর সুন্দর রঙিন পোশাক পরে বের হন এবং আপনার ছোট্ট শিশুটিকেও পরিয়ে নেন রঙিন বিচিত্র জামাকাপড়। ছুটির দিনগুলোতে আপনার পছন্দের স্থানগুলোর মধ্যে থাকে চিড়িয়াখানা, উদ্যান কিংবা কোনো ভ্রমণের উদ্দেশ্যে শহরের বাহিরে বিভিন্ন দৃষ্টিনন্দন জায়গা, কখনো দুর্গম স্থান । আপনি কি জানেন যে আপনার পোশাকের রং দেখে প্রাণীরা কখনো কখনো আপনার ওপর বিব্রত হতে পারে, এমনকি আপনার ওপর আক্রমণও করতে পারে । সম্প্রতি প্লোস ওয়ান জার্নালে এক গবেষণায় উল্লেখ করা হয়েছে যে পোশাকের রঙের কারণে প্রাণীরা আতংকিত হয়।

ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার গবেষক ব্রেয়ান্না পুতমান ও তার সহকর্মীরা বিষয়টি নিয়ে দীর্ঘ গবেষণায় নিয়োজিত রয়েছেন । তারা দুটি প্রাণীর অবাদ বিচরণমূলক পার্কে বিষয়টি নিয়ে পরীক্ষা চালান, একটিতে যেখানে মানুষজনের চলাচল বেশি অপরটিতে যেখানে মানুষজন কম। তারা লক্ষ্য করেন যে গাঢ় নীল, হালকা নীল, ধূসর ও লাল রঙের জামা পরে গিরগিটির পাশ দিয়ে চলাফেরার সময় ঐ গিরগিটিগুলোর মধ্যে কিছুটা অস্বাভাবিক আচরণ।

প্রাণীগুলো বিচিত্র রং দেখে আতংকিত হয় এবং পালাতে উপনিত হয়। পুতমান ও অন্যান্যরা রাতের অন্ধকারে টর্চের আলো জ্বালিয়ে গাঢ় নীল রঙের পোশাক পরে গিরগিটিগুলোর পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় প্রাণীগুলো প্রায় ১০০ সেন্টিমিটার দূর দিয়ে পালাতে থাকে । মূলত প্রাণীরা নিজ দেহের রঙের সাথে সাদৃশ্য খুঁজে পেলে তারা তখন কম আতংকিত হয়। এই প্রাণীগুলোর গলা ও বুকের দিকে গাঢ় নীল রং থাকায় এরা এ কম দূরত্ব দিয়ে পালায়। পরবর্তীতে হালকা নীল জামা পরায় দেখা যায় প্রায় ১৪০ সেন্টিমিটার দূর দিয়ে প্রাণীগুলো পালিয়ে যায়। এবং শেষ পর্যায়ে লাল জামা পরা দেখে ক্ষুদ্র প্রাণীগুলো অস্থির হয়ে ছুটতে থাকে । প্রায় ২২০ সেন্টিমিটার দূর দিয়ে দ্রুত এরা পালায় । বিষয়টি নিয়ে বেশ কয়েকবার পরীক্ষা করে তারা এই সিদ্ধান্তে আসেন, প্রাণীরা অপরিচিত রঙে স্বাভাবিক থাকে না এবং এমন সময়গুলোতে প্রাণীরা মানুষদেরকে শিকারি ভেবে কখনো আতংকগ্রস্ত হয়ে পালাতে চেষ্টা করে কিংবা কখনো ভয়ে আক্রমণও করে বসে।
বন্যপ্রাণীরা যেমন বুনোষাঁড়, হাতি সহ অনেক প্রাণীরা প্রায়ই অস্বাভাবিক আচরণ করে হয়তো এই রঙের জন্যে । যারা পরিবেশ ও বন নিয়ে গবেষণায় রয়েছেন, যারা বনের প্রাণীর ছবি তোলেন, এবং যারা বনবিহার করতে পছন্দ করেন তাদের পোশাকের রঙের প্রতি একটু বেশি খেয়াল রাখা হয়তো বুদ্ধিমানের কাজ হবে।

পুরুষ অপেক্ষা নারীরা একটু বেশি সাজসজ্জায় নিজেদের নিয়ে ব্যস্ত থাকেন । নীল, হলুদ বা লাল রঙের পোশাক পছন্দ করে থাকেন নিজেদের একটু বেশি আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য। আবার অতি লাল রঙের লিপস্টিকও পরে থাকেন । লাল ও হলুদ স্বভাবতই সতর্কমূলক রং । অদ্ভুতভাবে এই রং দুটি একটু বেশি বন্যপ্রাণীদের কাছেও বিদ্বেষপূর্ণ, বিষধর ও অপ্রীতিকর এমনটাই জানান পুতমান ।

তাই, আপনার পোশাক ও সাজসজ্জায় পরিবেশ বুঝে উপস্থাপনাই আপনাকে নিরাপদে রাখবে এবং আপনাকে সকল স্থানে ভ্রমণের উপযোগী করে তুলবে ।

 

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/এ আর/এস আর

১৫ নভেম্বর, ২০১৭ ১৪:০০ পি.এম