President

দেখতে দেখতে শীত প্রায় চলেই এলো। এই সময় ঠাণ্ডা লাগা, সর্দিকাশি, গলা ব্যাথা সহ আরও অনেক ধরনের রোগ বৃদ্ধি পেতে পারে। এমন পরিস্থিতিতে ঘরোয়াভাবে কিছু বিষয় অনুশীলন করলে ঠাণ্ডা লাগা, সর্দিকাশি, গলা ব্যাথার মতো সমস্যা সহজেই দূরে রাখা সম্ভব। জেনে নিন সর্দি-কাশি দূর করার কিছু ঘরোয়া উপায়-

আদা চা: আদা চা সর্দি, কাশিতে দারুণ কাজ করে। এই বিশেষ ধরনের চা নিয়মিত পান করলে সর্দিকাশি দূর হয়। এছাড়াও শ্বাসকার্যে বাধা সৃষ্টিকারী কফ বুক থেকে বেরিয়ে যেতে শুরু করে। তাই দ্রুত সর্দি এবং কাশি সারাতে আদা চা খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।


দারচিনি, লেবু এবং মধু
সর্দি কাশিতে একদম কাবু হয়ে গেছেন? কিছুতেই সারাতে পারছেন না? তাহলে সুস্থ থাকতে হলে আপনাকে তা দূর করতেই হবে।তা দূর করার জন্য দারুচিনি, মধু ও লেবু একসঙ্গে মিশিয়ে সিরাপের মত বানাতে পারেন। নিয়মিত তা সেবন করলে সর্দিকাশি সহজেই দূর হবে।

হালকা গরম পানি
হালকা গরম পানি সর্দি, কাশি এবং গলা বসে যাওয়ার মতো সমস্যায় দারুণ কাজ করে। এটি ঠাণ্ডা লেগে গলা ফুলে যাওয়া এবং যে কোনো সংক্রমণ থেকেও শরীরকে রক্ষা করে।

হলুদ এবং দুধ
শরীরে কোথাও আঘাত পেলে অনেকেই দুধে হলুদ মিশিয়ে পান করেন। এছাড়া এই পানীয়টি সর্দি-কাশি সারাতে দারুণ কাজ করে। তাই তো এই সময় সুস্থ থাকতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে হলুদ মেশানো দুধ পান করার পরামর্শ দেওয়া হয়।

লবন মেশানো পানি দিয়ে গড়গড়া
সর্দিকাশি,গলা ব্যাথার মতো সমস্যায় দারুণ কাজ করে লবন মেশানো পানি। এই জল দিয়ে গারগেল করলে সর্দি, কাশি দ্রুত সেরে যায়। এছাড়া এই জলের মধ্যে এক চিমটে হলুদ দিয়ে দিলে দ্রুত উপকার পাওয়া যায়।

মধু, লেবুর রস ও গরম পানি
মধু, লেবুর রস এবং গরম পানি মিশিয়ে পান করলে হজম শক্তি বৃদ্ধি পায়। তাই পেটের যে কোন সমস্যা খুব সহজেই দূর হয়। এছাড়া এই পানীয়টি সর্দিকাশি দূর করতেও দারুণ কাজ করে।

মশলা চা
তুলসি, আদা, গোলমরিচ মিশিয়ে চা পান করলে শরীরের খুবই উপকার হয়। এই চা সর্দি, কাশি দূর করতে দারুণভাবে কাজ করে।

আমলকী
আমলকী শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে তোলে। শুধু তাই নয়, প্রতিদিন একটা করে আমলকী খেলে লিভার সহ শরীরের প্রতিটি অঙ্গ উপকৃত হয়। একইসঙ্গে সারিয়ে তোলে সর্দি-কাশির মতো নানান সমস্যা।

আদা- তুলসি
আদার রসের সঙ্গে তুলসি পাতা বাঁটা এবং মধু মিশিয়ে খেলে কাশি কমে যায়। এছাড়াও, সর্দি সারাতে এটি দারুণভাবে কাজ করে।

আদা এবং লবন
কয়েক টুকরো আদা কেটে তার মধ্যে লবন মেশাতে হবে। এবার এই আদার টুকরো মুখে নিয়ে একটু একটু করে কামড়ে খেতে হবে। এতে সর্দি, কাশি এবং গলা ব্যাথা কমে যাবে।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/এ আর/এস আর

০৮ নভেম্বর, ২০১৭ ১৪:২৮ পি.এম