President

 

শরীয়তপুরের নড়িয়ায় পদ্মা নদীর ওয়াপদা চেয়ারম্যান ঘাটের টার্মিনালে তীব্র স্রোতে ডুবে গেছে তিনটি লঞ্চ। এতে একই পরিবারের তিনজনসহ অন্তত অর্ধশতাধিক যাত্রী নিখোঁজ রয়েছেন। তবে উদ্ধার হয়েছে যাত্রীসহ পাঁচজন। সোমবার ভোর ৫টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

উদ্ধার হওয়া মোহাম্মদ আলী বলেন, ভোরে লঞ্চ ঘাটে ভিড়লেও চারদিকে পরিষ্কার না হওয়ায় লঞ্চ থেকে আমরা নামিনি। কিন্তু স্রোতে লঞ্চটি তলিয়ে যায়। আমি পাড়ে ওঠতে পারলেও বাকিদের উদ্ধার করতে পারিনি।

লঞ্চডুবির বিষয়টি নিশ্চিত করে নড়িয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসলাম উদ্দিন বলেন, আজ (সোমবার গভীর রাতে ৪টি লঞ্চ ওয়াপদা চেয়ারম্যান ঘাট টার্মিনালে এসে ভিড়ে। ভোর পাঁচটার দিকে পদ্মা নদীতে প্রচুর স্রোত থাকায় টার্মিনাল থেকে ছিড়ে নড়িয়া-২, মৌচাক-২, মহানগর নামে তিনটি লঞ্চ পদ্মা নদীতে তলিয়ে যায়। এ ঘটনায় পাঁচযাত্রীকে উদ্ধার করা সম্ভব হলেও, যাত্রী ও লঞ্চ স্টাফসহ কতজন নিখোঁজ রয়েছে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। আমরা উদ্ধারের চেষ্টা করছি।

ঘাটের ইজারাদার মোতালেব শিকারী জানিয়েছেন, ভোরে ৪টি লঞ্চ এসে এ টার্মিনালে ভিড়ে। সকল যাত্রী নেমে গেলেও চারজন যাত্রী লঞ্চে ছিলেন। আমাদের লঞ্চ স্টাফরা নিখোঁজ রয়েছেন। তবে ঠিক কতজন স্টাফ নিখোঁজ তা বলা যাচ্ছে না।

চাঁদপুর বিআইডব্লিউটিএ’র কর্মকর্তা মনিরুল ইসলাম জানান, ইতোমধ্যে উদ্ধার কাজের জন্য মাওয়া ঘাট থেকে ডুবুরি দল এবং নারায়ণগঞ্জ থেকে জাহাজ প্রত্যয় রওনা দিয়েছে।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/এ আর/এস আর/এইচ কে

১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১১:৪০ এ.ম