স্বচ্ছ পানি করিছে খেলা
নদী-নদ, খাল বিলে,
দেখিয়া তাহা দিলের মাঝে
এক স্বর্গীয় সুখ মিলে।

বৃষ্টির পানি আসে আর যায়
এই সব স্থান দিয়া,
সঙ্গে বহে দখিনা বায়ু
ভিজা মাটির গন্ধ নিয়া।

রাত্রি হইলে কান পাতিয়া
                     বাহিরে শুনিতে পাই,
বৃষ্টির সেই রিমঝিম শব্দ-
          মন বলে- বাহিরে না কেন যাই।

সূর্য উঠিলে জলদি উঠি
যেন না যায় প্রভাত বেলা,
বাহিরে আসিয়া উপভোগ করি
সেই স্বচ্ছ পানির খেলা।

সূর্যের আলো পড়িলে সেথায়
চিকচিক করে পানি,
মনে হয় যেন নাহিতে এসেছে
সয়ং স্বর্গীয় রানী।

পানির তলায় করিছে খেলা
                  নানান মাছের ঝাক,
দেখিলে তাহা শেষ হইয়া যায়
                   সব দুঃখ, কষ্ঠ, রাগ।

বকের সারি পাল বাধিয়া
ইড়িছে খালের পাড়,
না জানি সব মাছগুলো
ভাগ্যে আছে কার।

আকাশেতে মেঘ ভাসছে
বাতাশ দিচ্ছে দোলা,
সেই স্বচ্ছ পানির খেলা-
যায় কি কোনদিন ভুলা?

লেখক: শাওন আরাফাত

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/নীরব/এস আর/হায়াত/ ১৯ মার্চ ২০১৭