আপনার প্রেমজীবন কি ডিজিটাল? অর্থাৎ রিয়েল লাইফের থেকে ফেসবুকে বেশি প্রেম করেন? তাহলে কিন্তু বিপদ আসতে পারে। ফেসবুকে রিলেশনশিপ স্টেটাস তো বদলেছেন, কিন্তু বিপদ আসতে পারে অন্য ভাবেও।

একটি ওয়েব পোর্টালে প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, সাম্প্রতিক গবেষণায় দেখা গিয়েছে যে সকল প্রেমিক-প্রেমিকারা স্যোশাল মিডিয়ায় তাঁদের সম্পর্কের খুঁটিনাটি প্রতিমুহূর্তে শেয়ার করেন, তাঁদের প্রেম সবচেয়ে বেশি ৪ থেকে ৬ মাস টিকেছে। গবেষণায় অনুযায়ী, সম্পর্কে আসার আগে ইনবক্সে যতটা কথাবার্তা হয়, সম্পর্কে একবার জড়িয়ে পড়লে কথাবার্তা অনেক কমে যায়। কারণ বিষয়টি একঘেয়ে হয়ে আসে। সম্পর্কে ভাঙন ধরার এও একটা কারণ বটে।

তবে এসবের উর্ধ্বে গবেষকরা বলছেন, সম্পর্ক টেকা না টেকার আসল কারণ হল বন্ডিং। মনোবিজ্ঞান অনুযায়ী, যে সমস্ত সম্পর্কে দুজনের ভালোলাগা, খারাপ লাগা, পছন্দ,অপছন্দ এক, তাঁদের সম্পর্ক বহুদিন টিকে থাকে। আর যে সম্পর্কের মধ্যে এটা নেই সেই সম্পর্ক তাসের ঘরের মতো হয়। একটু হাওয়া দিলেই ভেঙে যায়। আসলে সম্পর্কের দু’জন মানুষ একে অন্যের সঙ্গে থাকতে চায়। তাই তাঁদের মধ্যে মানসিক মিলটা খুব জরুরি হয়ে পড়ে। সেই একাত্মতায় যখন অপছন্দের কিছু আসে, তখনই সমস্যা দেখা দেয়। আর তা ভেঙে যায়।

তাই সম্পর্ক টিকিয়ে রাখার জন্য এমন মানুষের সঙ্গে মিশুন বা সম্পর্ক তৈরি করুন, যাঁর সঙ্গে আপনার মনের মিল আছে। পছন্দ অপছন্দগুলোও যাঁর সঙ্গে আপনার মেলে।

টাইমস ওয়ার্ল্ড ২৪ ডটকম/এ এন/আই এ/এ আর৫/১৮ মে ২০১৭